রেজিস্ট্যান্স কিভাবে সিরিজ এবং প্যারালাল সার্কিটে ব্যবহার করা হয়

সিরিজ এবং প্যারালাল সার্কিটে-series and parallel circuits ক্যালকুলেশন করে কিভাবে একটা রেজিস্ট্যান্স ব্যবহার করা হয় সেই বিষয়টা আজকে জানবো ।একটা ইলেকট্রনিক সার্কিটে একটা রেজিস্ট্যান্স সিরিজেও লাগানো হয় এবং প্যারালালও লাগানো হয় । সার্কিটে কোন জায়গায় কি মানের রেজিস্ট্যান্স এবং কত ওয়াটের রেজিস্ট্যান্স ব্যবহার করা হবে তার একটা গাণিতিক ক্যালকুলেশন রয়েছে।এই ক্যালকুলেশন টা যদি আপনি ভালভাবে বুঝতে পারেন।তাহলে যেকোনো সার্কিটে সিরিজে বা প্যারালালে আপনি কত মানের রেজিস্ট্যান্স লাগাবেন এবং কত মানের রেজিস্ট্যান্স ব্যবহার করবেন সেটা খুব ভালোভাবে বুঝতে পারবেন । এই বিষয়টা আজকে আপনাদের ভালোভাবে বুঝিয়ে দেবো ।

একটা সার্কিটে বিভিন্ন মানের রেজিস্ট্যান্স ব্যবহার করা হয় এবং বিভিন্ন watt এর রেজিস্ট্যান্স ব্যবহার করা হয় । আমি দুইটা এলইডি 3mm / 5mm  এবং বিভিন্ন মানের রেজিস্ট্যান্স নিয়ে আপনাদের গাণিতিক ক্যালকুলেশন করে বোঝানোর চেষ্টা করব যে কিভাবে একটা রেজিস্ট্যান্স সিরিজ এবং প্যারালাল সার্কিটে ব্যবহার করা হয় ।আমরা জানি যে বিভিন্ন মানের রেজিস্ট্যান্স আছে অর্থাৎ রেজিস্ট্যান্সের বিভিন্ন মান হয়ে থাকে এবং বিভিন্ন ওয়াটের হয় । যেহেতু আমি এলইডি দিয়ে গাণিতিক ক্যালকুলেশন করে দেখাবো । যেকোনো ভোল্টেজের সাহায্যে  এলইডি কে জ্বালানোর জন্য একটা নির্দিষ্ট মানের রেজিস্ট্যান্স ব্যবহার করা হয় এবং নির্দিষ্ট ওয়াটের রেজিস্ট্যান্স ব্যবহার করা হয়।

সিরিজ এবং প্যারালাল সার্কিটে-series and parallel circuits কিভাবে নির্দিষ্ট মানের এবং ওয়াটের রেজিস্ট্যান্স ব্যবহার করা হয় চলুন আমরা গাণিতিক ক্যালকুলেশনের মাধ্যমে জেনে নিব ।

Series Circuit:

 

প্রথমে আমি আপনাদের সিরিজ সার্কিটের মাধ্যমে গাণিতিক ক্যালকুলেশন করে দেখাবো ।

এখন চলুন আপনাদের গাণিতিক ক্যালকুলেশন একটু বুঝিয়ে দেই যে কিভাবে একটা সার্কিটে Resistance calculation করে রেজিস্ট্যান্স ব্যবহার করা হয়।

Ohm’s Law অনুযায়ী আমরা জানি,

V = IR                                                               V= Voltage

I = V/R                                                              I = Ampire

আবার পাওয়ার বের করার জন্য আমরা জানি,         R = resistance

P = VI                                                               P = power

= V*V/R

আমরা পাওয়ার বের করার জন্য উপরের সূত্রটি ব্যবহার করতে পারি । আর এম্পিয়ার বের করার জন্য নিচের এই সূত্রটি ব্যবহার করতে পারি ।

I = V/R

Resistance Calculation
Resistance Calculation

সিরিজ সার্কিট এর ক্ষেত্রে প্রথমে আমাদের মাথায় রাখতে হবে,

  1. কারেন্ট সমান থাকবে ।
  2. ভোল্টেজ ভাগ হয়ে যাবে ।

উপরের সার্কিটটি লক্ষ্য করুন এখানে সোর্স ভোল্টেজ 220v-240v.আমি এই ভোল্টেজ দিয়ে ক্যালকুলেশন করে দেখাবো ।গাণিতিক ক্যালকুলেশন টা যদি আপনি ভালো ভাবে বোঝেন তাহলে যেকোনো ভোল্টেজ দিয়ে আপনি কিন্তু গাণিতিক ক্যালকুলেশন করতে পারবেন ।

আমরা জানি যে একটা 3mm/5mm  এলইডি জ্বালানোর জন্য  3v এর প্রয়োজন হয় এবং 20 মিলি এম্পিয়ার কারেন্ট এর প্রয়োজন হয় । তাহলে 20 মিলি এম্পিয়ার কে যদি এম্পিয়ার করা হয়।

IL = 20ma

IL = 20/1000

IL = 0.02 Amp         we know, 1Amp = 1000ma

মনে করেন উপরের সার্কিটে আমি 80 এলইডি সিরিজে সংযোগ করলাম ।এই 80 এলইডি যদি আমি সিরিজে জ্বালাতে চাই এবং সোর্স ভোল্টেজ যদি 220 থেকে 240 ভোল্ট দেয়া হয় । তাহলে কত মানের রেজিস্ট্যান্স এবং কত ওয়াটের রেজিস্ট্যান্স এখানে সংযোগ করতে হবে সেটা ক্যালকুলেশন করে বের করবো ।

এখানে,

লোড কারেন্ট IL = 0.02 Amp

লোড ভোল্টেজ VL = 80*3 = 240v

যেহেতু সিরিজ সার্কিটের এম্পিয়ার একই থাকে এবং ভোল্টেজ ভাগ হয়ে যায় এজন্য প্রত্যেকটা এলইডি 3v ড্রপ করবে ।তাহলে আশিটা এলইডি 240 ভোল্ট ড্রপ করবে । এজন্য লোড ভোল্টেজ 240 ভোল্ট ।

আমরা জানি,

V = IR

R = V/I

= Vs – VL/I

= 240 – 240/ 0.02

=0/0.02

= 0 Ohm.

তাহলে উপরের ক্যালকুলেশন থেকে আমরা বুঝতে পারলাম সোর্স ভোল্টেজ যদি 240 ভোল্ট হয় আর যদি আমি আশিটা এলইডি জ্বালাতে চাই তাহলে কোন রেজিস্ট্যান্স লাগবে না । আপনি সরাসরি এসি ভোল্টেজ এর সাথে সংযোগ দিতে পারবেন । এখন আশিটি এলইডির পরিবর্তে যদি আমি পঞ্চাশটি এলইডি জ্বালাতে চাই তাহলে গাণিতিক ক্যালকুলেশন করে দেখি ।যদি 50 টি এলইডি সিরিজে ব্যবহার করি তাহলে লোড ভোল্টেজ VL = 50*3 =150v

আমরা জানি,

V = IR

R = V/I

= Vs – VL/I

= 240 – 150/ 0.02

= 90/0.02

= 4500 Ohm.

= 4.5 KOhm

তাহলে বুঝতেই পারলেন এখানে 50 টা এলইডির জন্য  5kOhm একটা রেজিস্ট্যান্স লাগবে ।এখন কত ওয়াটের রেজিস্ট্যান্স লাগবে সেটা বের করি।

P = VI

= V*V/R

= 90*90/4.5k

= 1.8 watt

=2 watt

তাহলে আমার 4.5 kOhm এবং 2 watt রেজিস্ট্যান্স লাগবে ।আশাকরি গাণিতিক ক্যালকুলেশন টা বুঝতে পেরেছেন ।এভাবে আপনারা সিরিজ সার্কিটের রেজিস্ট্যান্স ক্যালকুলেশন করবেন ।

Paralal circuit:

এখন প্যারালাল সার্কিটের ক্ষেত্রে ক্যালকুলেশন করে দেখাবো । প্যারালাল সার্কিটের ক্ষেত্রে আমরা জানি,

  1. ভোল্টেজ একই থাকে।
  2. কারেন্ট ভাগ হয়ে যায় ।
series and parallel circuits
series and parallel circuits

এখানে আমি সোর্স ভোল্টেজ 6v নিয়েছি । এখানে পনেরোটা এলইডি প্যারালালে সংযোগ করে আপনাদের ক্যালকুলেশন করে দেখাবো ।

এই সার্কিটে,

লোড ভল্টেজ VL = 3v

লোড কারেন্ট IL = 0.02 *15 =0.3 amp

আমরা জানি,

V = IR

R = V/I

= Vs – VL/I

= 6 – 3/ 0.3

= 3/0.3

= 10 Ohm.

তাহলে পনেরোটা এলইডি যদি প্যারালালে সংযোগ করা হয় তাহলে 3 Ohm একটা রেজিস্ট্যান্স লাগবে । এখন কত ওয়াটের সেটা বের করতে হবে ।

P = VI

= V*V/R

= 3*3/10

= 0.9 watt

= 1 watt

তাহলে একটা প্যারালাল সার্কিটের যদি আমি সোর্সকোড সিক্স ভোল্ট এবং পনেরোটা এলইডি জ্বালাতে চাই তাহলে আমার 10 Ohm এবং 1 watt রেজিস্ট্যান্স সংযোগ করতে হবে । আশাকরি series and parallel circuits গাণিতিক ক্যালকুলেশন টা বুঝতে পেরেছেন ।

100% LikesVS
0% Dislikes

1 thought on “রেজিস্ট্যান্স কিভাবে সিরিজ এবং প্যারালাল সার্কিটে ব্যবহার করা হয়”

Leave a Comment